রানার অটোমাবাইলস-এর ডিলার কনফারেন্স ২০১৭ অনুষ্ঠিত

এ মাসেই আন্তর্জাতিক বাজারে মোটরসাইকেল রপ্তানি করবে রানার অটোমাবাইলস লিমিটেড। এছাড়া চলতি বছরেই যুক্তরাষ্ট্রের প্রযুক্তি সম্পন্ন উচ্চ ক্ষমতার বিখ্যাত ইউএম-রানার ব্র্যান্ড মোটরসাইকেল বাজারজাত শুরু হবে বলে জানিয়েছেন রানার অটোমোবাইলসের চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান খান। গতকাল রবিবার রাজধানীর লা মেরিডিয়ান হোটেলে আয়োজিত ‘বার্ষিক ডিলার কনফারেন্স-২০১৭’ প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য

রানার মোটরস্ এর পরিবেশক সম্মেলন সম্পন্ন

গত ০৩ জানুয়ারী ২০১৭ ইং মঙ্গলবার সকাল ১০.০০ ঘটিকায় রাজধানীর রেডিসন ব্লু হোটলে রানার মোটরস্ লিঃ এর পরিবেশক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছে। উক্ত অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য প্রদান করেন রানার মোটরস্ লিঃ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ব্রিগেঃ জেনারেল শফিকুজ্জামান (অব.)। এছাড়া গুরুত্বপূর্ণ বক্তব্য রাখেন কোম্পানির ভাইস-চেয়ারম্যান মোঃ মোজাম্মেল হোসেন এবং চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান খান। চেয়ারম্যান মহাদয়

রানার অটোমোবাইলস এর আইপিও রোড শো অনুষ্ঠিত

বাংলাদেশে মোটর সাইকেল উৎপাদনের অগ্রদূত রানার অটোমোবাইলস লিমিটেড ১৯ অক্টোবর বুধবার একটি রোড শোর আয়োজন করে । প্রাথমিক গণ প্রস্তাবের (আইপিও) মাধ্যমে বুক বিল্ডিং পদ্ধতিতে পুঁজিবাজারে আসার অংশ হিসেবেই এই আয়োজন করা হয়।  ১১০ থেকে ১৫০ সিসি রেঞ্জের নতুন মডেলের মোটর সাইকেল তৈরির পাশাপাশি বাজারে বিদ্যমান মডেলগুলোর মান আরও বাড়ানোর পরিকল্পনা

শতভাগ ভারতে নির্মিত প্রথম বৈদ্যুতিক বাস ‘সার্কিট’ উদ্বোধন করল অশোক লেল্যান্ড

ভারতের হিন্দুজা গ্র“পের ফ্ল্যাগশিপ কোম্পানি অশোক লেল্যান্ড গত ১৭ অক্টোবর চেন্নাইয়ে দেশের প্রথম বৈদ্যুতিক বাস ‘সার্কিট’ উদ্বোধন করেছে। ভারতীয় প্রকৌশলীরা বাসটির সম্পূর্ণ নকশা ও প্রকৌশল কার্য সম্পাদন করেছেন। ভারতের সড়ক অবস্থা ও যাত্রীলে’ডের কথা বিবেচনা করে অশোক লেল্যান্ড সম্পূর্ণ বিদ্যুৎ চালিত ও পরিবেশবান্ধব (জিরো ইমিশন) বাসটি তৈরি করেছে। ‘সার্কিট’ সিরিজের বাসগুলো

মার্সিডিজ বেঞ্জ এর নতুন গাড়ি ই-ক্লাস এখন বাংলাদেশে

বিশ্ববিখ্যাত বিলাসবহুল গাড়ি নির্মাতা প্রতিষ্ঠান মার্সিডিজ বেঞ্জ বাংলাদেশ নিয়ে এলো তাদের নতুন ফ্লাগশিপ গাড়ি ই ক্লাস২০১৭। পহেলা অক্টোবর, ২০১৬, শনিবারে তেজগাঁও-গুলশান লিং করোডে অবস্থিত মার্সিডিজ বেঞ্জ এর শোরুমে নতুন গাড়িটির উদ্বোধন অনুষ্ঠান সম্পন্ন হয়। নতুন এই ই-ক্লাস ২০১৭ গাড়িতে সর্বাধুনিক প্রযুক্তি ব্যবহার করেছে মার্সিডিজ বেঞ্জ, যার মাধ্যমে গাড়িটি নিজেই স্বয়ংক্রিয়ভাবে চলাচল নিয়ন্ত্রণ